সিবিআইয়ের কঠোর জেরার মুখে কলকাতার পুলিশ কমিশনার

ভারতের পশ্চিমবঙ্গে চিটফান্ড মামলায় এবার কঠোর জেরার মুখে পড়তে যাচ্ছেন কলকাতার পুলিশ কমিশনার (সিপি) রাজীব কুমার— এমনটাই কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা (সিবিআই) সূত্রের খবর।

অন্যদিকে, রোজভ্যালি চিটফান্ড মামলায় তথ্য চেয়ে এবার পশ্চিমবঙ্গে দুই পুলিশ কর্মকর্তাকে চিঠি দিয়েছে অপর কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট (ইডি)।

এই মামলা সংক্রান্ত তথ্য চেয়ে সিবিআইর পাঠানো নোটিশ বারবারই অগ্রাহ্য করে আসছিলেন রাজীব কুমার। তবে সম্প্রতি একাধিক নাটকীয় ঘটনার পর তাকে জেরা করার অনুমতি দেয় ভারতের সর্বোচ্চ আদালত।

সূত্র জানায়, সর্বোচ্চ আদালতের রায় অনুযায়ী রাজীব কুমারকে জেরা করতে গত রোববার কলকাতায় সিপির বাংলোর সামনে পুলিশের হাতে নিগৃহীত ডিএসপি তথাগত বর্ধনের নেতৃত্বে শিলংয়ে যাচ্ছে সিবিআইর বিশেষ দল। তাকে জেরা করার জন্য প্রশ্নের তালিকাও তৈরি করেছে সিবিআই। প্রাথমিকভাবে ২০০টি প্রশ্নের একটি তালিকা তৈরি করে তা থেকে বাছাই করে ১০০টি প্রশ্ন চূড়ান্ত করেছেন গোয়েন্দারা। এমনভাবে এই প্রশ্ন তৈরি করা হয়েছে যাতে প্রতিটি প্রশ্নেরই সঠিক উত্তর পাওয়া যায়।

এদিকে সিবিআই নিয়ে যখন পশ্চিমবঙ্গ উত্তাল, ঠিক তখনই রোজভ্যালি কাণ্ডে কলকাতা পুলিশের ডিসি এসটিএফ মুরলীধর শর্মা ও ডিসি এসইডি কল্যাণ মুখোপাধ্যায়কে চিঠি দিয়েছে ইডি। সূত্রের খবর, এই দুই পুলিশ কর্মকর্তার কাছ থেকে তথ্য তলব সংক্রান্ত চিঠি ইতিমধ্যে রাজ্যের স্বরাষ্ট্র সচিবের কাছে পৌঁছেছে। তাদের সল্টলেকের সিজিও কমপ্লেক্সে ইডি দপ্তরে তথ্য পাঠাতে হবে।

অন্যদিকে, চিটফান্ড ইস্যুতে দিল্লির নেতাদের বিপক্ষে রাজ্যের কংগ্রেস উল্টো অবস্থানই বজায় রেখেছে। গত সোমবার রাজ্য কংগ্রেস নেতা ও সাংসদ অধীর চৌধুরী তৃণমূলের বিপক্ষে মত দেন, যা নিয়ে বিতর্ক দেখা দেয়। তবে এর পরে কংগ্রেস নেতা আবদুল মান্নান ও রাজ্য কংগ্রেস সভাপতি সোমেন মিত্র একই অবস্থানে রয়েছেন। বুধবার সিবিআইর এই ইস্যুতে সমর্থন জানিয়ে চিটফান্ড কাণ্ডে দোষীদের শাস্তির দাবি জানিয়ে কলকাতায় মিছিল করে কংগ্রেস।




  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত


আন্তর্জাতিক ক্যাটাগরির আরও খবর পড়ুন